• বুধবার   ২৯ জুন ২০২২ ||

  • আষাঢ় ১৪ ১৪২৯

  • || ২৭ জ্বিলকদ ১৪৪৩

ভুল নয়, জানুন ম্যারিনেট করার সঠিক নিয়ম

দৈনিক গাইবান্ধা

প্রকাশিত: ৪ মে ২০২২  

এমন অনেক রান্নাই আছে যা করতে গেলে আগে সেই রান্নার মূল উপকরণ মাছ কিংবা মাংস ম্যারিনেট করে রাখতে হয়। এতে মশলা খুব ভালোভাবে মাছ বা মাংসের সঙ্গে মিশে যায়। আর রেসিপিটি তৈরির পর খেতেও আরো সুস্বাদু লাগে।

তাছাড়া ম্যারিনেট করে রাখলে মাছ-মাংস, সবজি খুব সহজেই রান্না হয়ে যায়। কারণ ম্যারিনেট করতে ব্যবহৃত লেবুর রস, ভিনেগার, দইয়ে যে অ্যাসিড থাকে, তা প্রোটিন তন্তুগুলোকে নরম করে তোলে। চলুন এবার ম্যারিনেট বিষয়ক কিছু দরকারি টিপস জেনে নেয়া যাক- 

ম্যারিনেট করার সঠিক নিয়ম কী?

ম্যারিনেশনের সময় অতিরিক্ত লবণ দেওয়া হলে মাছ বা মাংস থেকে আর্দ্রতা বেরিয়ে যায়। সামান্য চিনি দিতে পারেন। এতে রান্না করার সময় তা ক্যারামেলাইজ করবে ও দেখতে সুন্দর হবে।

কোন রান্নায় কোন মশলা দিয়ে ম্যারিনেট করবেন?

দেশি রান্নার ক্ষেত্রে আদা, রসুন, ধনিয়া, জিরা, গরম মশলা আর টক দই ব্যবহার করতে পারেন। আবার যদি ইটালিয়ান রান্না করতে চান তাহলে অলিভ অয়েল, রসুন, লেবুর রস দিন। চাইনিজ রান্নার ক্ষেত্রে তিলের তেল, রসুন আর সয়া সস যোগ করতে পারেন।

কতক্ষণ মশলা মেখে রাখবেন?

মাছের ক্ষেত্রে এক ঘণ্টা ম্যারিনেট করলেই হয়ে যাবে। মুরগির মাংস রান্না করতে হলে অন্তত দুই ঘণ্টা মশলা মেখে রেখে দিন। লাল মাংসের ক্ষেত্রে কয়েক ঘণ্টা পর্যন্ত ম্যারিনেট করে রাখুন।

টিপস

>> মাংসের গায়ে ছিদ্র করার সময় জোর দিয়ে করবেন না। এতে রান্না করার সময় মাংস ভেঙে যেতে পারে।

>> ম্যারিনেট করে স্বাভাবিক তাপমাত্রায় ফেলে রাখবেন না। রাখলেও তা চার ঘণ্টার বেশি নয়। ফ্রিজে রেখে দেওয়াই সবচাইতে ভালো।

>> তামা, পিতল কিংবা স্টিলের পাত্রে ম্যারিনেট করবেন না।

দৈনিক গাইবান্ধা
দৈনিক গাইবান্ধা