বৃহস্পতিবার   ১৮ জুলাই ২০২৪ || ২ শ্রাবণ ১৪৩১

দৈনিক গাইবান্ধা

প্রকাশিত : ১১:৩৪, ১৮ জুন ২০২৪

গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে জমে উঠেছে চামড়ার হাট

গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে জমে উঠেছে চামড়ার হাট
সংগৃহীত

উত্তরাঞ্চলের সব চেয়ে বড় চামড়া হাট বসে গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে। গত কয়েকটি ঈদে চামড়ার হাট না জমলেও এবার দাম একটু বেশি হওয়ায় জমে উঠেছে এ চামড়ার হাট। দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে আসা ব্যবসায়ীদের সমাগমে পরিণত হয়েছে ক্রেতা-বিক্রেতাদের মিলনমেলায়। ঈদের দিন বিকাল থেকেই শুরু বেচা-কেনা চলবে গভীর রাত পর্যন্ত।

গত বছর এই দিনে এক কোটি টাকার চামড়া বিক্রি হলেও এবার বিক্রি ৪কোটি ছাড়িয়ে যাবে বলে আশা ক্রেতা-বিক্রেতা ও হাট কর্তৃকপক্ষের। উত্তরাঞ্চলের বিভিন্ন স্থান থেকে ছোট ব্যবসায়ীরা গ্রাম-গঞ্জ থেকে চামড়া কিনে ট্রাক, পিকআপ, রিকশাভ্যানে করে চামড়া নিয়ে হাটে আসতে শুরু করেছেন ব্যবসায়ীরা।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, এবার হাটে প্রচুর চামড়ার আমদানি হয়েছে। দিনাজপুর, পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁও, পাটগ্রাম, লালমনিহাট, বগুড়া, রংপুর, কুড়িগ্রাম, জলঢাকা, নীলফামারী থেকে আসা চামড়ার স্তুপে কানায়-কানায় পূর্ণ জেলার পলাশবাড়ী উপজেলার কালিবাড়ী হাটের বিস্তীর্ণ এলাকা।

হাটে চামড়া নিয়ে আসা চামড়া ব্যবসায়ী জাহাঙ্গীর মিয়া বলেন, অন্যান্য বছরের তুলনায় এবার চামড়া একটু দাম আছে। গত বছর যে গরুর চামড়া বিক্রি হতো ৩০০ থেকে ৪০০ টাকা। এবার আকার ভেদে ৪০০ টাকা থেকে ১৫০০ টাকা পর্যন্ত বিক্রি করা যাচ্ছে। আরেক ব্যবসায়ী নজরুল ইসলাম ইসলাম বলেন, এবার হাটে চামড়া প্রচুর আমদানি হয়েছে। দাম মোটামুটি ভালো। ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী মাঠ পর্যায়ে কম দামে চামড়া সংগ্রহ করা হয়েছে। এজন্য চামড়া মধ্যে লোকসান হওয়ার কোন সম্ভবনা নেই।

হাট ইজারাদার মো. মিনু মিয়া সময়ের কণ্ঠস্বরকে বলেন, প্রতিটি চামড়া প্রকারভেদে ৪০০ থেকে ১৫০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। তবে এবার এ হাটে ৪ কোটির মত চামড়া কেনা- বেচা হতে পারে বলে তাঁর ধারনা।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়

সর্বশেষ