বৃহস্পতিবার   ১৮ জুলাই ২০২৪ || ২ শ্রাবণ ১৪৩১

প্রকাশিত : ১৩:০০, ৩১ জানুয়ারি ২০২৪

গাড়ি ভাঙচুরের মামলা

মামুনুল হকের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য ১৯ মার্চ

মামুনুল হকের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য ১৯ মার্চ
সংগৃহীত

রাজধানীর দারুসসালাম থানার গাড়ি ভাঙচুরের মামলায় হেফাজতে ইসলামের সাবেক যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হকসহ ২২ জনের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণের জন্য আগামী ১৯ মার্চ দিন ধার্য করেছেন আদালত। 

মঙ্গলবার ঢাকার পঞ্চম যুগ্ম মহানগর দায়রা জজ ও বিশেষ ট্রাইব্যুনাল-১০ এর বিচারক মামুনুর রহমান ছিদ্দিকীর আদালতে সাক্ষ্যগ্রহণের দিন ধার্য ছিল। 

এদিন মামুনুল হককে কাশিমপুর কারাগার থেকে আদালতে উপস্থিত করা হয়। তবে কোনো সাক্ষী না আসায় আদালত সাক্ষ্যগ্রহণ পিছিয়ে আগামী ১৯ মার্চ দিন ধার্য করেন।  

গত বছরের ২৪ সেপ্টেম্বর আদালতে এ মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়। প্রথম দিন সাক্ষ্য দেন মামলার বাদী প্রদীপ কুমার সাহা। মামলায় মোট সাক্ষী করা হয়েছে নয়জনকে।

মামুনুল হকের আইনজীবী শেখ শাকিল আহমেদ রিপন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

মামলার অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ২০১২ সালের ৯ ডিসেম্বর সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ১৮ দল সমর্থিত ৪০০-৫০০ জন নেতাকর্মী অনুমানিক সকাল সাড়ে ৬টার দিকে লাঠিসোটাসহ সজ্জিত হয়ে গাবতলী এলাকায় মিছিল বের করে। এরপর গাবতলীর আল্লাহর দান হোটেলের সামনে পৌঁছে গাবতলী হতে ছেড়ে আসা যাত্রীবাহী একটি বাসের গতিরোধ করে। সে সময় গাড়ির সামনের এবং পাশের গ্লাস ভাঙচুর করে গাড়ির আনুমানিক দেড় লাখ টাকার ক্ষতি করে এবং আটটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায়। 

এ ঘটনায় দারুসসালাম থানার এসআই প্রদীপ কুমার সাহা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন। মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে ১৯০৮ সালের পেনাল কোডের ১৪৩/৩৪১/১৪৭/১৪৮/১৪৯/১২৩ ধারা ও বিস্ফোরক দ্রব্যাদি আইনের ৩ ধারার অভিযোগ আনা হয়।

মামলাটি তদন্ত করে ২০১৩ সালের ২৮ সেপ্টেম্বর ২২ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা। এরপর ২০১৮ সালের ২৮ মে আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের মাধ্যমে মামলার আনুষ্ঠানিক বিচার শুরুর আদেশ দেন আদালত। 

মামলার চার্জশিটভুক্ত অন্য আসামিরা হলেন- এস এ খালেক (২) সাইদুল (৩২), (৩) মোহাম্মদ আলী (৩৩), (৪) খলিলুল্লাহ (2) হিরু (৩৪), (৫) মাসুদ (২৮), (৬) বাবুল (৩১), (৭) সালেক (৩৫) এবং (৮) এইচ এম ইমরান (৩০), মিজানুর বাবু (৩০) পান্নু শেখ, মো. দবির উদ্দিন (২৪), আব্দুর রাজ্জাক (৪২), শেখ শাহিন শাহ (৪৩), মো. ইয়াসিন আরাফাত (২২), কনক কনা (৩০), মোস্তফা কামাল মিজান (৫৮), আব্দুল আজিজ (৪২), মো. আমজাদ হোসেন শিকদার (৬০), মো. তরিকুল ইসলাম (২৮), এসএম কাওসার পাপ্পু (৫০), কাজী আব্দুল হানিফ।

সূত্র: ডেইলি-বাংলাদেশ

সর্বশেষ

জনপ্রিয়

সর্বশেষ