• মঙ্গলবার   ০৫ জুলাই ২০২২ ||

  • আষাঢ় ২০ ১৪২৯

  • || ০৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

সাঘাটায় ১২ মুক্তিযােদ্ধা পরিবারের জন্য নির্মাণ হচ্ছে বীরনিবাস

দৈনিক গাইবান্ধা

প্রকাশিত: ২ এপ্রিল ২০২২  

মুজিব শতবর্ষে অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সাঘাটা উপজেলায় অসচ্ছল ১২ জন বীর আবাসন সংকট নিরসনে মুক্তিযোদ্ধা মন্ত্রনালয় মুক্তিযোদ্ধার পরিবারের জন্য নির্মাণ হচ্ছে বীর নিবাস। মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে এ উপজেলার ১২ অসচ্ছল ভূমিহীন বীরমুক্তিযোদ্ধা পাচ্ছেন এই বীর নিবাস। নির্মাণ কাজ শেষ করে আগামী মার্চ মাসের মধ্য বীরমুক্তিযোদ্ধাদের নবনিরমিরত বাড়ির চাবি তুলে দেয়া হবে বলে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা মনে করছেন। সুবিধাভােগির আওতায় আনা হয়েছে, তারা হলেন পদুমশহর গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা মােজাম্মেল হক,চিথুলিয়া গ্রামের গােলেস্তা বেগম,চিথুলিয়া গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা আকালু ব্যাপারী, হাসিলকান্দি গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা তাজুল হােসেন, কুখাইড় গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা ছকু শেখ, বড়াইকান্দি গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা বাচ্চা মিয়া, খামার পবনতাইড় গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা দিলিপ কুমার পাল, চিনিরপটল গ্রামের কাজল বেগম, হাসিলকান্দি গ্রামে বীরমুক্তিযােদ্ধা আব্দুল মান্নান, চাঁনপাড়া গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা আবুল ফজল, ফলিয়া দিগর গ্রামের বীরমুক্তিযােদ্ধা মজনু মিয়া ও তেলিয়ান গ্রামের মেহেরন নেছা। নিজেদের জন্য সরকারীভাবে বাড়ি নির্মাণ হওয়ায় অসচ্ছল মুক্তিযােদ্ধাদের মধ্যে আনন্দ দেখা দিয়েছে। খামারপবনতাইড় গ্রামের অসচ্ছল ভুমিহীন বীরমুক্তিযােদ্ধাও পাচ্ছেন এই আবাসনের বাড়ি। তিনি জানান, যুগ যুগ ধরে ভাঙ্গা ঘরে পরিবার পরিজন নিয়ে কষ্টের সাথে বসবাস করেছি। এখন এই বাড়িতে বাকী জীবন বেশ সুখেই দিন কাটাতে পারবেন বলে তিনি আশা প্রকাশ করছেন। এসব আবাসন প্রকল্পের আওতায় একতলা বিশিষ্ট আধুনিক ভবনে থাকছে দুটি বেড রুম, একটি ডাইনিং রুম, দুটি টয়লেট ও একটি কিচেন রুমমসহ আধুনিক সুযােগ-সুবিধা। আধুনিক সুবিধা সম্বলিত প্রত্যেকটি ভবনের জন্য নির্মাণ ব্যায় হচ্ছে ১৩ লক্ষাধিক টাকা। এ ভবনে উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের ১২জন বীর মুক্তিযােদ্ধা পরিবার আশ্রয় নেবেন। উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মিঠুন কুন্ডু জানান, আবাসন প্রকল্পের এই বাড়ি গুলাের নির্মাণ কাজ শেষ হলে সুবিধা মুক্তিযােদ্ধার পরিবার সেখানে স্থায়ী ভাবে বসবাস করবে।

দৈনিক গাইবান্ধা
দৈনিক গাইবান্ধা