• শনিবার   ২১ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৬ ১৪২৯

  • || ১৮ শাওয়াল ১৪৪৩

মুজিব শতবর্ষে গাইবান্ধা থিয়েটারের নাটক `অদৃশ্য এক অণুজীব`অনুষ্ঠিত

দৈনিক গাইবান্ধা

প্রকাশিত: ২০ জানুয়ারি ২০২২  

মুজিব জন্মশতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষে কিশামত বালুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে গত ১৯ জানুয়ারী বুধবার সন্ধ্যায় করোনা ভাইরাস সচেতনতায় মাস্ক বিতরণ, আলোচনা সভা ও নাটক পরিবেশিত হয়। অনুষ্ঠানের শুরুতেই বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকদের মধ্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়। এই অনুষ্ঠানটির আয়োজন থেকে শুরু করে সার্বিক ব্যয় নির্বাহ করেন বিদ্যালয়ের সভাপতি উদীয়মান বিশিষ্ট তরুণ সমাজসেবক প্রকৌশলী শামীম প্রামানিক বাদল।

সারাদেশের ৩৫০টি নাট্যদলের পরিবেশনায় সদর উপজেলার কিশামত বালুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ওইদিন সন্ধ্যায় গাইবান্ধা থিয়েটারের প্রযোজনায় ও সাজু সরকারের রচনায় ‘অদৃশ্য এক অণুজীব’ নামে একটি নাটক পরিবেশিত হয়। নাটকটির নির্দেশনায় ছিলেন গাইবান্ধা থিয়েটারের সভাপতি আলমগীর কবির বাদল। গাইবান্ধা জেলা শিল্পকলা একাডেমির তত্ত¡াবধানে এবং বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। 

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. শরিফুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন গাইবান্ধা জেলা শিল্পকলা একাডেমির সাধারণ সম্পাদক প্রমতোষ সাহা, জেলা ক্রীড়া অফিসার আলমগীর কবির, গাইবান্ধা থিয়েটার ও সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের জেলা সভাপতি আলমগীর কবির বাদল, বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য পল্লী চিকিৎসক আব্দুল লতিফ প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি স ালনা করেন নাট্যকর্মী শাহ আলম বাবলু। 

উল্লেখ্য, বিদ্যালয়ে লেখাপড়ার দিক দিয়ে অন্যান্য বিদ্যালয়ের অনেকটা এগিয়ে রয়েছে। প্রতি বছর বিদ্যালয়ের পিইসি’র ফলাফল অনেক সন্তোষজনক। বিদ্যালয়ের সভাপতি প্রকৌশলী শামীম প্রামানিক বাদলের অনুপ্রেরণা ও প্রচেষ্টায় বিদ্যালয়টি আজ অনেক সুনাম অর্জন করেছে। সরকারের অনুদানের পাশাপাশি এবং তাঁর নিজের অর্থায়নে বিদ্যালয়ের চতুর পাশে প্রাচীর নির্মাণ করেন। উক্ত প্রাচীরে জাতির বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, মনিষী, বিভিন্ন শিক্ষকনীয় বিষয়, বীর শ্রেষ্ঠদের ছবিসহ প্রাকৃতিক নানা ধরণের ছবি এঁকে দিয়েছেন। শুধু তাই নয়, বিদ্যালয়টির প্রবেশ সুদৃশ্য নান্দনিক গেটও নির্মাণ করেছেন। এই গেটসহ প্রাচীরের চারপাশে উন্নতমানের রঙিন লাইটিং দিয়ে আলোকসজ্জা করেছেন। যা রাতের বেলায় বিদ্যালয়ের দিকে তাকালে চোখ সরানোই যায় না। 

দৈনিক গাইবান্ধা
দৈনিক গাইবান্ধা