• বুধবার   ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ৬ ১৪২৮

  • || ১৩ সফর ১৪৪৩

লকডাউনে ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখবেন যেভাবে

দৈনিক গাইবান্ধা

প্রকাশিত: ১ জুলাই ২০২১  

করোনাকালে বাড়িতে থাকতে থাকতে ওজন বাড়েনি এমন মানুষ পাওয়া দুষ্কর। বছরের বিভিন্ন সময়ে লকডাউনে শারীরিক, মানসিক ও অর্থনৈতিক অনিশ্চয়তা মানুষকে ক্লান্ত করে তুলছে। মানসিক চাপেও বাড়ছে ওজন। তবে, এই অবাঞ্চিত ওজন নিয়ে খুব বেশি চিন্তিত হওয়ার কিছু নেই। বাড়তি ওজন সহজেই ঝরিয়ে ফেলা সম্ভব যদি কয়েকটি অভ্যাস বদলে ফেলেন। তার আগে লকডাউনে কেন ওজন বাড়ছে সে বিষয়গুলোতে নজর দিতে হবে।

১.ওজন বেড়ে যাওয়ার প্রথমেই আছে মানসিক চপ, উদ্বেগ বা অবসাদের মতো সমস্যাগুলো। লকডাউনে এ সমস্যাগুলো ক্রমশ বাড়ছে। মানসিক অসুস্থতার কারণে ওজন বেড়ে যাওয়া খুবই স্বাভাবিক।

২.বাড়ি থেকে অফিসের কাজ ক্রমাগত করতে করতে অনেকেরই একঘেয়েমি চলে এসেছে। বাড়ির কাজ শেষ করেই অফিসের কাজে ব্যস্ত হয়ে যাওয়াতে দীর্ঘ সময় খাওয়া হয় না ঠিক ভাবে। পরে এক সাথে অনেক বেশি খাবার খেয়ে ফেলেন। এছাড়া অনেক সময় কাজের ফাঁকে ফাঁকে জাঙ্ক ফুডও খেয়ে থাকেন কেউ কেউ। এসব কারণে ওজন বাড়ে।

৩.লকডাউনে অনেক পার্কে ঢোকা নিষেধ করেছে কর্তৃপক্ষ। সেই কারণে অনেকের সকালের হাঁটা হচ্ছে না। সারাদিন বাসায় শুয়ে-বসে থাকায় তেমন কোনো শারীরিক পরিশ্রম হচ্ছে না। এতেও ওজন বাড়ছে।

শরীরের অবাঞ্চিত বাড়তি ওজন ঝরিয়ে ফেলার উপায়গুলো কী কী চলুন জেনে নেওয়া যাক-

১.লকডাউনে যতোদিন বাসায় থাকবেন তখন ক্রিম বিস্কুট, চিপস, চানাচুর, ঝুড়িভাজা, কেক পেস্ট্রি একদম খাবেন না। এবং এসব কিনেও আনবেন না বাসায়। যদি ঘরে অস্বাস্থ্যকর খাবার না থাকে তাহলে আপনিও সেগুলো খেতে পারবেন না। এসবের বদলে ফল কিনুন বেশি করে। খিদে পেলে খাবেন।

২.সারা দিনে বেশি করে পানি পান করবেন। শুধু পানি খেতে বিস্বাদ ঠেকলে বিভিন্ন মৌসুমী ফলের জুস, লেবুর শরবত, ভেষজ চায়ের মতো পানীয় খেতে পারেন।

৩.পাড়ার রাস্তায় একটু হাঁটাহাঁটি করুন। যদি মনে হয় আপনার পাড়ায় ভিড় বেশি, তা হলে বাড়ির ছাদে হাঁটাহাঁটি করুন। তা ছাড়াও কিছু সহজ ব্যায়াম, যা বাড়িতেই কোনো সরঞ্জাম ছাড়া করা সম্ভব, প্রত্যেক দিন করুন।

৪.অনেকেই এই সময় রান্না না করে অর্ডার করে দিচ্ছেন। কিন্তু বাড়িতে নিজে রান্না করলে, সে খাবার অনেক বেশি স্বাস্থ্যকর হবে। চেষ্টা করুন নিজেই রান্না করতে। প্রতি বেলায় গরম ও তাজা খাবার খেতে চেষ্টা করবেন।

৫.বাড়িতে থাকবেন বলে যে কোনো রুটিন মেনে চলবেন না তা তো হতে পারে না। লকডাউনে একটি নির্দিষ্ট রুটিন মেনে চলুন। বাইরে যেতে হচ্ছে না বলে যখন ইচ্ছে ঘুম, যখন ইচ্ছে খাওয়া-দাওয়া করবেন না। ঘুমের সময় ঠিক না থাকলেও ওজন বেড়ে যেতে পারে। তাই বাড়িতে থাকলেও কোনো না কোনো কাজ করার চেষ্টা করুন।

দৈনিক গাইবান্ধা
দৈনিক গাইবান্ধা