• শনিবার   ২৪ জুলাই ২০২১ ||

  • শ্রাবণ ৮ ১৪২৮

  • || ১২ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

একাত্তরে বিশ্ব জনমত গঠন : ১২ জনকে মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি

দৈনিক গাইবান্ধা

প্রকাশিত: ২০ জুলাই ২০২১  

বাংলাদেশের স্বাধীনতার পক্ষে বিশ্ব জনমত গঠনে বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে তৎকালীন সময়ে (১৯৭১ সাল) যুক্তরাজ্য প্রবাসী ১২ জনকে মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে সরকার।

গত ১৩ জুলাই তাদের মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি দিয়ে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। পরে রোববার (১৮ জুলাই) তা গেজেট আকারে প্রকাশিত হয়। এর আগে জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের ৭৪তম সভায় এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়।

মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে প্রবাসে বিশ্ব জনমত গঠন গেজেটে অন্তর্ভুক্ত ১২ জনের মধ্যে (গেজেট নং-২) যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান মাহমুদ শরীফ, সাবেক প্রধান বিচারপতি এবিএম খায়রুল হক (গেজেট নং-৩), সাবেক বিচারপতি এ এইচ এম শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক (গেজেট নং-৪), জাতীয় জাদুঘরের সাবেক মহাপরিচালক এনামুল হক (গেজেট নং-৫), সাবেক মন্ত্রী (সদ্য প্রয়াত) জাকারিয়া চৌধুরী (গেজেট নং-৬), সাবেক রাষ্ট্রদূত রাজিউল হাসান (গেজেট নং-৭), সাবেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী (গেজেট নং-১২) রয়েছেন।

এছাড়া ঢাকার গুলশানের আব্দুল মজিদ চৌধুরী (গেজেট নং-৮), গোপালগঞ্জের কাশিয়ানির সৈয়দ মোজাম্মেল আলী (গেজেট নং-৯), ঢাকার গুলশানের আবুল খায়ের নজরুল ইসলাম (গেজেট নং-১০), সিলেট অম্বরখানার মাহমুদ আব্দুর রউফ (গেজেট নং-১১) ও হবিগঞ্জের আফরাজ আফগান চৌধুরী (গেজেট নং-১৩) মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি পেয়েছেন।

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় জানায়, এর আগে ২০১৯ সালে যুক্তরাজ্যে গঠিত ১৩১টি সংগঠনের কেন্দ্রীয় সংগঠন স্টিয়ারিং কমিটির আহ্বায়ক মরহুম মো. আজিজুল হক ভূঁঞাকে প্রবাসে বিশ্ব জনমত গঠন গেজেটের ১নং সদস্য হিসেবে মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি দেয়া হয়।

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের মহান স্বাধীনতা সংগ্রামে প্রবাসে বিশ্ব জনমত গঠনে সক্রিয় সংগঠক ও ব্যক্তিদের মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি দেয়ার উদ্যোগ নেয় মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়। এজন্য তাদের জীবন বৃত্তান্ত নিতে একটি ফরম প্রকাশ করেছে মন্ত্রণালয়।

ফরমে স্বাধীনতা সংগ্রামে প্রবাসে বিশ্ব জনমত গঠনে সক্রিয় সংগঠকের নাম, পিতা/স্বামীর নাম, মাতার নাম, বর্তমান ঠিকানা, স্থায়ী ঠিকানা, জন্ম তারিখ, জাতীয় পরিচয়পত্র ও পাসপোর্ট নম্বর, পেশা, ১৯৭১ সালে বহির্বিশ্বে অবস্থানকালীন ঠিকানা, স্বাধীনতার পক্ষে ভূমিকা ও প্রমাণ সমূহের তথ্য দিতে হবে। এছাড়া তিনজন সংগঠক/সাক্ষীর নাম, ফোন ও ই-মেইল আইডিও দিয়ে আবেদন করারও সুযোগ রাখা হয়।

মুক্তিযুদ্ধ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, প্রবাসে মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষে যারা বিশ্ব জনমত গঠনে কাজ করেছেন তারা আগামী সেপ্টেম্বর পর্যন্ত মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে অন্তর্ভুক্তির আবেদন করতে পারবেন।

দৈনিক গাইবান্ধা
দৈনিক গাইবান্ধা