• সোমবার   ১২ এপ্রিল ২০২১ ||

  • চৈত্র ২৯ ১৪২৭

  • || ২৯ শা'বান ১৪৪২

শরীর ও মনকে সুস্থ রাখতে এই ৫ কাজ জরুরি

দৈনিক গাইবান্ধা

প্রকাশিত: ৭ এপ্রিল ২০২১  

সুস্থ থাকার মানে কেবল শারীরিকভাবেই নয়, মানসিকভাবেও ভালো থাকা। তাই যখনই সুস্থ থাকার প্রসঙ্গ আসবে, শরীর এবং মনের যত্নের প্রতি মনোযোগী হবেন। স্বাস্থ্যকর জীবনযাপনের মাধ্যমে খুব সহজেই আপনি সুস্থ থাকার পথটি সহজ রাখতে পারবেন। শরীর ভালো থাকলে থাকলে তার চিহ্ন থাকে মনে, আবার মন খারাপ থাকলে তার প্রভাব পড়ে শরীরে। তাই শরীর ও মন সুস্থ রাখা সমান জরুরি। মন খালি চোখে দেখা না গেলেও তার যত্নের প্রতি উদাসীন থাকা যাবে না।

আজ বিশ্ব স্বাস্থ্য দিবস। প্রতি বছর এই দিনে অর্থাৎ এপ্রিলের ৭ তারিখ দিবসটি পালন করা হয়। স্বাস্থ্য দিবস পালনের মূল উদ্দেশ্য হলো সবাইকে স্বাস্থ্য সম্পর্কে সচেতন করা। অনেকেই শরীরের প্রতি যত্নশীল হলেও মনের দিকে গুরুত্ব দেন না। কিন্তু মানসিক স্বাস্থ্য ভালো রাখা জরুরি এ বিষয়ে সবার জানা থাকা চাই। নিজের বা কাছের কারও মানসিক সমস্যা দেখা দিলে যত দ্রুত সম্ভব চিকিৎসার ব্যবস্থা করতে হবে, যেমনটা আমরা শারীরিকভাবে অসুস্থ হলে করে থাকি। জেনে নিন নিজেকে সুস্থ রাখার ৭ উপায়-

স্বাস্থ্যকর খাবার খান

সুস্বাস্থ্যের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়ার বিকল্প নেই। কারণ আপনার গ্রহণকৃত খাবার থেকেই শরীর প্রয়োজনীয় পুষ্টি পেয়ে থাকে। তাই স্বাস্থ্যকর খাবার খেলে স্বাভাবিকভাবেই শরীর সুস্থ থাকে। অপরদিকে শরীরের জন্য ক্ষতিকর খাবার খেলে তা ডেকে আনে নানা অসুখ। সকালে পেটপুরে খাবার খান। দুপুরে খান ভারী ও হালকার মাঝামাঝি। আর রাতের খাবার খান একদমই হালকা। তিনবেলা মূল খাবারের বাইরে খেতে পারেন স্বাস্থ্যকর নাস্তা ও মৌসুমী ফলমূল। বাড়িতে রান্না করা খাবার খান। রান্নার পদ্ধতি যেন স্বাস্থ্যকর হয়, সেদিকে খেয়াল রাখুন।

মানসিক চাপ নেবেন না

জীবন সব সময় একইভাবে মসৃণ চলবে না। কখনো আনন্দ, কখনো বেদনা আসবেই। তাই সত্যিকে সহজে গ্রহণ করার মানসিকতা গড়ে তুলুন। কোনো বিষয়ে আশানুরূপ ফল না হলে ভেঙে পড়বেন না। ভবিষ্যতের কথা ভেবে মানসিক চাপ বাড়াবেন না। বরং হাশিখুশি ও দুশ্চিন্তামুক্ত থাকুন। মানসিক চাপ আরও অনেক অসুস্থতার কারণ। তাই মানসিক চাপ বাড়তে দেবেন না। মন ভালো রাখে এমন সব কাজ করুন।

নিয়মিত শরীরচর্চা করুন

স্বাস্থ্যকর খাবারের মতোই আরেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হলো নিয়ম মেনে শরীরচর্চা করা। প্রতিদিন সম্ভব না হলে সপ্তাহে অন্তত তিনদিন শরীরচর্চায় মন দিন। এতে আপনি শারীরিক ও মানসিকভাবে অনেকটাই সতেজ অনুভব করবেন। জিমে গিয়ে ভারী শরীরচর্চা করা সম্ভব না হলে বাড়িতেও করতে পারেন। সেইসঙ্গে ধরে রাখুন হাঁটাহাঁটির অভ্যাস।

মন ভালো রাখুন

মনের প্রতি যত্নশীল হোন। মন কী চায় তা ভেবে দেখুন। মনের বিরুদ্ধে কাজ করতে যাবেন না। তবে অনেক সময় মন অযৌক্তিক কিংবা অবাস্তব কিছু চাইতে পারে। তখন মনকে বোঝান। আবেগ এবং বিবেকের সমন্বয়ে সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে শিখুন। মন ভালো থাকলে তা আপনার শরীর ভালো রাখতেও সাহায্য করবে।

প্রার্থনা করুন

আপনার ধর্মীয় বিশ্বাস অনুযায়ী প্রার্থনায় মনোযোগী হোন। নিয়মিত প্রার্থনা করলে তা আপনার মন ও শরীর ভালো রাখবে। মিলবে মানসিক প্রশান্তি। এতে করে আপনি আরও অনেক ভালো কাজে উৎসাহী হবেন। নিজেকে ভালো রাখার এটি অন্যতম উপায়।

পরোপকার

শুধু নিজের জন্য ভাববেন না। নিজের পাশাপাশি পরিবার, প্রিয়জনদের কথাও ভাবুন। অন্যের উপকার করলে মানসিকভাবে অনেকটাই শান্তি পাবেন। এমন অনেকে আছেন, যাদের আপনার সাহায্যের প্রয়োজন, তাদের পাশে থাকুন। আপনার সামর্থ্য অনুযায়ী তাদের ভালো রাখার চেষ্টা করুন। এতে তাদের পাশাপাশি আপনিও ভালো থাকবেন।

ভালো ঘুম

ঘুম মানে কিন্তু বিলাসিতা নয়। আমাদের সুস্থ ও সুন্দর থাকার জন্য নিয়মিত ভালো ঘুম জরুরি। যারা নিয়মিত পর্যাপ্ত ঘুমান, তাদের শরীর ও মন ভালো থাকে। অপরদিকে অনিদ্রার কারণে দেখা দিতে পারে আরও অনেক সমস্যা। ঘুম ভালো না হলে কোনো কাজেই মনোযোগ দেওয়া সম্ভব হয় না। তাই সারাদিন কাজের শেষে আপনার শরীরকে যথেষ্ট বিশ্রামের ব্যবস্থা করে দিন। ঘুম যাতে ভালো হয় সেদিকে খেয়াল রাখুন।

দৈনিক গাইবান্ধা
দৈনিক গাইবান্ধা